দ্বিগুণ মূল্যবৃদ্ধির পর এল নতুন বিনিয়োগের খবর

0
379

এক মাসে প্রায় দ্বিগুণ মূল্যবৃদ্ধির পর জানা গেল, নতুন বিনিয়োগে যাচ্ছে বস্ত্র খাতের কোম্পানি মালেক স্পিনিং। অবশ্য শেয়ারবাজারের কিছু বিনিয়োগকারীর কাছে এ খবর আগেই জানা ছিল। যাঁরা জানতেন, তাঁরা আগেই কোম্পানিটির শেয়ার কিনেছেন। তাতে দেশের প্রধান শেয়ারবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) এক মাসে কোম্পানিটির শেয়ারের দাম বেড়েছে সাড়ে ১৫ টাকা বা ৮১ শতাংশ। আর তিন মাসের ব্যবধানে বেড়েছে ২১ টাকা বা দেড় শ শতাংশের বেশি।

এক মাস আগে, অর্থাৎ গত ২৫ মে ডিএসইতে কোম্পানিটির শেয়ারের দাম ছিল ১৯ টাকা ২০ পয়সা। আর তিন মাস আগে গত ২৫ মার্চ এটির শেয়ারের দাম ছিল ১৩ টাকা ৮০ পয়সা। গতকাল দিন শেষে তা বেড়ে দাঁড়ায় ৩৪ টাকা ৭০ পয়সা। অর্থাৎ তিন মাসে কোম্পানিটির শেয়ারের দাম বেড়েছে আড়াই গুণের বেশি।

ডিএসই কর্তৃপক্ষের চিঠির জবাবে গতকাল বৃহস্পতিবার মালেক স্পিনিং জানিয়েছে, কোম্পানিটি তাদের বিদ্যমান কারখানা আধুনিকায়নের পাশাপাশি নতুন একটি কারখানা স্থাপন করবে। ময়মনসিংহের ভালুকায় এ কারখানা গড়ে তোলা হবে। এ জন্য বিনিয়োগ করা হবে প্রায় ২১৩ কোটি টাকা। কোম্পানিটি এ-ও জানিয়েছে, বিদ্যমান কারখানার আধুনিকায়নের পর পণ্য বিক্রি ৬০ শতাংশ পর্যন্ত বেড়ে যাবে। তাতে মুনাফাও বাড়বে কোম্পানির।

এ খবরে গতকাল লেনদেন ও মূল্যবৃদ্ধির শীর্ষ তালিকায় ছিল মালেক স্পিনিং। গতকাল এক দিনেই ঢাকার বাজারে কোম্পানিটির ১০৮ কোটি টাকার শেয়ারের হাতবদল হয়। আর দিন শেষে শেয়ারের দাম ৩ টাকা ১০ পয়সা বা ১০ শতাংশ বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৩৪ টাকা ৭০ পয়সায়। চলতি সপ্তাহের ৫ কার্যদিবসেই কোম্পানিটির শেয়ারের দাম বেড়েছে ১২ টাকা বা ৫৩ শতাংশ। এর মধ্যে চার কার্যদিবস প্রতিদিনই কোম্পানিটির শেয়ারের দাম ১০ শতাংশ করে বেড়েছে। নিয়ম অনুযায়ী, শেয়ারবাজারে এক দিনে একটি কোম্পানির শেয়ারের দাম সর্বোচ্চ ১০ শতাংশ বাড়তে পারে। চলতি সপ্তাহের প্রথম দিনের লেনদেন শুরুর আগে কোম্পানিটির শেয়ারের বাজারমূল্য ছিল ২২ টাকা ৭০ পয়সা। এরপর টানা সর্বোচ্চ মূল্যবৃদ্ধি ঘটতে থাকে।

কোম্পানিটি তাদের নতুন বিনিয়োগের খবর গতকাল আনুষ্ঠানিকভাবে জানালেও বাজারে বেশ কিছুদিন ধরে এ খবর ঘুরে ফিরছিল। তাতেই কোম্পানিটির শেয়ারের প্রতি বিনিয়োগকারীদের আগ্রহ তৈরি হয়। ফলে দামও হু হু করে বাড়তে থাকে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here