বাজার মূলধন ফিরেছে সাড়ে ৭০০ কোটি টাকা

0
132
HTML tutorial

বিদায়ী সপ্তাহে শেয়ারবাজারের প্রধান প্রধান সূচক বেড়েছে। সূচক বাড়লে টাকার পরিমাণে লেনদেন এবং অধিকাংশ প্রতিষ্ঠানের শেয়ার ও ইউনিট দর কমেছে। টাকার পরিমাণে লেনদেন কমলেও সপ্তাহটিতে সাড়ে সাতশত কোটি টাকা বাজার মূলধন ফিরেছে শেয়ারবাজারে।

বিদায়ী সপ্তাহের প্রথম কার্যদিবস লেনদেন শুরুর আগে ডিএসইতে বাজার মূলধন ছিল ৫ লাখ ২১ হাজার ৮৮৫ কোটি ৩৪ লাখ ৯৮ হাজার ২৬৬ টাকায়। আর সপ্তাহের শেষ কার্যদিবস লেনদেন শেষে বাজার মূলধন দাঁড়ায় ৫ লাখ ২২ হাজার ৬৬৪ কোটি ৩৫ লাখ ৩৪ হাজার ২৩১ টাকায়। অর্থাৎ সপ্তাহের ব্যবধানে বাজার মূলধন ৭৭৯ কোটি ০০ লাখ ৩৫ হাজার ৯৬৫ টাকা ফিরেছে।

বিদায়ী সপ্তাহে ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) ৯ হাজার ৯১ কোটি ২২ লাখ ৬১ হাজার ৬৩৬ টাকার লেনদেন হয়েছে। আর আগের সপ্তাহে লেনদেন হয়েছিল ৯ হাজার ৫১৪ কোটি ৫৪ লাখ ১৩ হাজার ১৬৪ টাকার। অর্থাৎ সপ্তাহের ব্যবধানে ডিএসইতে লেনদেনে ৪২৩ কোটি ৩১ লাখ ৫১ হাজার ৫৪৮ টাকা কম হয়েছে।

সপ্তাহের ব্যবধানে ডিএসইর প্রধান সূচক ডিএসইএক্স ৫১.৪১ পয়েন্ট বা ০.৭৯ শতাংশ বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৬ হাজার ৫৬০.০২ পয়েন্টে। অপর সূচকগুলোর মধ্যে ডিএসই শরিয়াহ সূচক ৩২.০৬ পয়েন্ট বা ২.২৮ শতাংশ এবং ডিএসই-৩০ সূচক ৭০.৫২ পয়েন্ট বা ৩.০৬ শতাংশ বেড়ে দাঁড়িয়েছে যথাক্রমে এক হাজার ৪৪১.২৫ পয়েন্টে এবং দুই হাজার ৩৭৬.১৭ পয়েন্টে।

বিদায়ী সপ্তাহে ডিএসইতে মোট ৩৮৭টি প্রতিষ্ঠান শেয়ার ও ইউনিট লেনদেনে অংশ নিয়েছে। প্রতিষ্ঠানগুলোর মধ্যে দর বেড়েছে ৬৮টির বা ১৭.৫৭ শতাংশের, কমেছে ২৬৫টির বা ৬৮.৪৮ শতাংশের এবং অপরিবর্তিত রয়েছে ৫৪টির বা ১৩.৯৫ শতাংশের শেয়ার ও ইউনিট দর।

অপরদিকে, চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জে (সিএসই) বিদায়ী সপ্তাহে টাকার পরিমাণে লেনদেন হয়েছে ১৬০ কোটি ০৭ লাখ ৭৪ হাজার ৭৫৪ টাকার। আর আগের সপ্তাহে লেনদেন হয়েছিল ২৭৯ কোটি ৪৪ লাখ ৭৫ হাজার ৯০৪ টাকার। অর্থাৎ সপ্তাহের ব্যবধানে সিএসইতে লেনদেন ১১৯ কোটি ৩৭ লাখ ০১ হাজার ১৫০ টাকা কমেছে।

সপ্তাহটিতে সিএসইর সার্বিক সূচক সিএএসপিআই ১২০.১২ পয়েন্ট বা ০.৬২ শতাংশ বেড়ে দাঁড়িয়েছে ১৯ হাজার ২৭৬.৩২ পয়েন্টে। সিএসইর অপর সূচকগুলোর মধ্যে সিএসসিএক্স ৭৩.৯১ পয়েন্ট বা ০.৬৪ শতাংশ, সিএসই-৫০ সূচক ২৯.৪৪ পয়েন্ট বা ২.১৩ শতাংশ এবং সিএসআই সূচক ৩১.৫২ পয়েন্ট বা ২.৫৯ শতাংশ বেড়ে দাঁড়িয়েছে যথাক্রমে ১১ হাজার ৫৫৪.৮৮ পয়েন্টে, এক হাজার ৪১৪.১২ পয়েন্টে এবং এক হাজার ২৫১ পয়েন্টে। তবে অপর সূচক সিএসই-৩০ সূচক ১৩৬.৮০ পয়েন্ট বা ০.৯৮ শতাংশ কমে দাঁড়িয়েছে ১৩ হাজার ৭১০.২১ পয়েন্টে।

সপ্তাহজুড়ে সিএসইতে ৩৪২টি প্রতিষ্ঠানের শেয়ার ও ইউনিট লেনদেনে অংশ নিয়েছে। প্রতিষ্ঠানগুলোর মধ্যে ৬৮টির বা ১৯.৮৮ শতাংশের দর বেড়েছে, ২৩৬টির বা ৬৯ শতাংশের কমেছে এবং ৩৮টির বা ১১.১২ শতাংশের দর অপরিবর্তিত রয়েছে।

ট্রেডার বাংলাদেশ, ১০ সেপ্টেম্বর, ২০২২

HTML tutorial

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here